ঢাকা ০৩:১৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ২ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

উপজেলা নির্বাচন : দ্বিতীয় ধাপে চেয়ারম্যান পদে যারা বিজয়ী

দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা নির্বাচনেও একচেটিয়া জয় পেয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা। ১৫৬ উপজেলার মধ্যে ১৩৬টিতে জিতেছেন দলটির নেতারা। এ ছাড়া বিএনপির বহিষ্কৃত ছয় নেতা, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের এক, জাতীয় পার্টির (জেপি) এক (পদত্যাগী), আঞ্চলিক দল থেকে দুই ও বাকিগুলোতে স্বতন্ত্র প্রার্থীরা বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

ঢাকা বিভাগ 

ঢাকার সাভারে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনজুরুল আলম রাজীব ও ধামরাইয়ে ঢাকা জেলা যুবলীগের সাবেক নেতা আবদুল লতিফ; গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুক্তার হোসেন ও মুকসুদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য কাবির মিয়া; নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান কালাম, রূপগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব ও আড়াইহাজারে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য সাইফুল ইসলাম স্বপন; গাজীপুরের কালিয়াকৈরে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক সেলিম আজাদ এবং শ্রীপুরে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী রুমানা আলী টুসির ভাই জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জামিল হাসান দুর্জয়; রাজবাড়ী সদরে জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য এস এম নওয়াব আলী, গোয়ালন্দে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তফা মুন্সী ও বালিয়াকান্দিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এহসানুল হাকিম সাধন; মানিকগঞ্জের শিবালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আবদুর রহিম খান, ঘিওরে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মাহাবুবুর রহমান জনি ও দৌলতপুরে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সম্পাদক এস এম শফিকুল ইসলাম; ফরিদপুরের নগরকান্দায় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সাবেক সহসম্পাদক কাজী শাহ্‌ জামান বাবুল ও সালথায় গোট্টি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সম্পাদক ওয়াদুদ মাতুব্বর; মাদারীপুরের কালকিনিতে তৌহিদুজ্জামান শাহীন, শরীয়তপুর সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান আকন্দ উজ্জ্বল ও জাজিরায় জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ইদ্রিস ফরাজী; নরসিংদীর বেলাবোতে আওয়ামী লীগ নেতা শমসের জামান ভূঁইয়া রিটন ও মনোহরদীতে শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূনের ভাই জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য নজরুল মজিদ মাহমুদ স্বপন; টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য নার্গিস বেগম, কালিহাতীতে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের আজাদ সিদ্দিকী ও ঘাটাইলে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য আরিফ হোসেন; মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বি এম শোয়েব ও টুঙ্গিবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আমিরুল ইসলাম হালদার; কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে আওয়ামী লীগ নেতা মইনুজ্জামান অপু, নিকলীতে স্বতন্ত্র মোকাররম সরদার ও অষ্টগ্রামে আওয়ামী লীগ নেতা এ এস মাসুক নাজিম।

চট্টগ্রাম বিভাগ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি সাইদুর রহমান স্বপন, আখাউড়ায় উপজেলা যুবলীগের সাবেক আহ্বায়ক মনির হোসেন; কুমিল্লা সদর দক্ষিণে মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল হাই বাবলু, বরুড়ায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর শ্যালক হামিদ লতিফ ভূঁইয়া, চাঁদপুর সদরে উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক হুমায়ুন কবির সুমন, শাহরাস্তিতে আওয়ামী লীগ সমর্থক মকবুল হোসেন, হাজীগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হেলাল উদ্দিন; লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক ইমতিয়াজ আহমেদ, রায়পুরে অধ্যক্ষ মামুনুর রশীদ; নোয়াখালীর চাটখিলে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর কবির, সোনাইমুড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাবুল বাবু, সেনবাগে স্থানীয় সংসদ সদস্য মোর্শেদ আলমের ছেলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য সাইফুল আলম দিপু, চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় আবুল কাশেম চিশতি, ফটিকছড়িতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন মুহুরী, হাটহাজারীতে উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ইউনুস গণি চৌধুরী, কক্সবাজারের ঈদগাঁওয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু তালেব, চকরিয়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি ফজলুল করিম সাইদি ও পেকুয়ায় যুবদলের বহিষ্কৃত নেতা সাফায়েত আজিজ রাজু; খাগড়াছড়ি সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক দিদারুল আলম, দীঘিনালায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ধর্মজ্যোতি চাকমা, পানছড়িতে ইউপিডিএফ (মূল) নেতা চন্দ্রদেব চাকমা; রাঙামাটির কাপ্তাইয়ে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি নাছির উদ্দীন, বিলাইছড়িতে জেএসএস সমর্থিত প্রার্থী বীরোত্তম তংচংগ্যা, রাজস্থলীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি উবাচ মারমা; বান্দরবানের লামায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তফা জামাল ও নাইক্ষ্যংছড়িতে বিএনপির সাবেক নেতা তোফায়েল আহমেদ।

রাজশাহী বিভাগ

জয়পুরহাট সদরে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান মিঠু, পাঁচবিবিতে স্বতন্ত্র সাবেকুন্নাহার শিখা; বগুড়ার দুপচাঁচিয়ায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আহমেদুর রহমান বিপ্লব, আদমদীঘিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম রাজু, কাহালুতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আল হাসিবুল হাসান সুরুজ; চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সৈয়দ নজরুল ইসলাম; নওগাঁর সাপাহারে উপজেলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি শাহজাহান হোসেন মণ্ডল, পোরশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি শাহ মনজুর মোরশেদ, নিয়ামতপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ফরিদ আহমেদ; রাজশাহীর পুঠিয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সামাদ, বাগমারায় জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি জাকিরুল সান্টু, দুর্গাপুরে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সম্পাদক শরিফুজ্জামান শরীফ; নাটোরের লালপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্পাদক শামীম আহমেদ সাগর, বাগাতিপাড়ায় বিএনপির বহিষ্কৃত নেতা এস এম জাহাঙ্গীর; সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সেলিনা মির্জা, তাড়াশে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি; পাবনার চাটমোহরে আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত নেতা মির্জা রেজাউল করিম দুলাল, ভাঙ্গুড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম হাসনাইন রাসেল ও ফরিদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি খলিলুর রহমান সরকার।

খুলনা বিভাগ

মেহেরপুরের গাংনীতে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ খালেক; কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল মান্নান খান, ভেড়ামারায় পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু হেনা মোস্তফা মুকুল, মিরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুল হালিম, দৌলতপুরে জেলা যুবলীগের সভাপতি বুলবুল আহমেদ টোকেন; চুয়াডাঙ্গা সদরে জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক নঈম হাসান জোয়ার্দার ও আলমডাঙ্গায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা কে এম মনজিলুর রহমান; ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডুতে ব্যবসায়ী (আওয়ামী লীগে পদ নেই) সাইফুল ইসলাম টিপু, শৈলকুপায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আরিফ রেজা মুন্নু; যশোরের চৌগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম হাবিবুর রহমান, ঝিকরগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মনিরুল ইসলাম, শার্শায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি সোহরাব হোসেন; মাগুরার শালিখায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শ্যামল কুমার দে, মহম্মদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল মান্নান; নড়াইল সদরে জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আজিজুর রহমান ভূঁইয়া, লোহাগড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এ কে এম ফয়জুল হক রোম; বাগেরহাটের ফকিরহাটে উপজেলা যুবলীগের স্থগিত কমিটির সভাপতি শেখ ওয়াহিদুজ্জামান বাবু, মোল্লাহাটে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীনুল আলম ছানা, চিতলমারীতে আওয়ামী লীগ কর্মী আবু জাফর মো. আলমগীর হোসেন; খুলনার তেরখাদায় জেলা মৎস্যজীবী লীগের সহসভাপতি আবুল হাসান শেখ, দীঘলিয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক নেতা শেখ মারুফুল ইসলাম, ফুলতলায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আকরাম হোসেন; সাতক্ষীরার তালায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ঘোষ সনৎ কুমার, দেবহাটায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আল ফেরদাউস আলফা ও আশাশুনিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ বি এম মোস্তাকীম।

রংপুর বিভাগ

পঞ্চগড়ের বোদায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফারুক আলম টবি, দেবীগঞ্জে শালডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মদন মোহন রায়; ঠাকুরগাঁও সদরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোছারুল ইসলাম সরকার, রাণীশংকৈলে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আহম্মদ হোসেন বিপ্লব; নীলফামারীর সৈয়দপুরে বিএনপির বহিষ্কৃত যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়াদ হাসান সরকার রানা, কিশোরগঞ্জে স্বতন্ত্র আবদুর রশিদ, জলঢাকায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আনসার আলী মিন্টু; দিনাজপুরের বিরলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, কাহারোলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ কে এম ফারুক, বীরগঞ্জে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি আবু হোসাইন বিপু, বোচাগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আফসার আলী; লালমনিরহাটের কালীগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুজ্জামান আহমেদ, আদিতমারীতে আওয়ামী লীগের ইমরুল কায়েস ফারুক; রংপুরের মিঠাপুকুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য কামরুজ্জামান কামরু, পীরগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা নূর মোহাম্মদ মণ্ডল; কুড়িগ্রামের রাজারহাটে রংপুর জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য জাহিদ ইকবাল সারওয়ার্দী বাপ্পী, উলিপুরে জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য সাজাদুর রহমান সাজু, সদরে জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক মঞ্জুরুল ইসলাম রতন; গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাকিল আলম ও গাইবান্ধা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আমিনুজ্জামান রিংকু (এগিয়ে)।

বরিশাল বিভাগ

বরিশালের হিজলায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক আলতাফ মাহমুদ দিপু সিকদার, মুলাদীতে যুবলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক জহিরউদ্দিন খসরু; পটুয়াখালীর দশমিনায় উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক ইকবাল হোসেন হাওলাদার, গলাচিপায় উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক ওয়ানা মার্জিয়া নিতু, বাউফলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মোশারফ হোসেন খান; পিরোজপুরের কাউখালীতে জাতীয় পার্টির (জেপি-মঞ্জু) পদত্যাগকারী উপজেলা সভাপতি আবু সাঈদ মিঞা মনু, নেছারাবাদে উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আবদুল হক; বরগুনা সদরে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মনিরুল ইসলাম, বেতাগীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খলিলুর রহমান খান; ঝালকাঠি সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি খান আরিফুর রহমান, নলছিটিতে স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা সালাহ উদ্দিন খান সেলিম; ভোলা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. ইউনুছ, দৌলতখানে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মঞ্জুর আলম খান, বোরহানউদ্দিনে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও আলী আজম মুকুল এমপির ভগ্নিপতি জাফর উল্লাহ।

সিলেট বিভাগ

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক মজির উদ্দিন, জৈন্তাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম লিয়াকত আলী, গোয়াইনঘাটে জেলা বিএনপির বহিষ্কৃত নেতা শাহ আলম স্বপন; সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শামীম আহমেদ মুরাদ, তাহিরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আফতাব উদ্দিন, বিশ্বম্ভরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক রফিকুল ইসলাম তালুকদার, জামালগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি রেজাউল করিম শামীম; মৌলভীবাজারে রাজনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য শাহজাহান খান; হবিগঞ্জের বাহুবলে স্বতন্ত্র আনোয়ার হোসাইন, নবীগঞ্জে উপজেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক মুজিবুর রহমান চৌধুরী সেফু।

ময়মনসিংহ বিভাগ

ময়মনসিংহ সদরে উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবু সাঈদ, মুক্তাগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবদুল হাই আকন্দ, গৌরীপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সোমনাথ সাহা; জামালপুরের বকশীগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি নজরুল ইসলাম সাত্তার, দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, ইসলামপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুস সালাম; শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোশারফ হোসেন, নকলায় পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম সোহাগ; নেত্রকোনা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মারুফ হাসান খান অভ্র, পূর্বধলায় জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য এ টি এম ফয়জুর সিরাজ জুয়েল ও বারহাট্টায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী সাখাওয়াত হোসেন বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন।

উপজেলা নির্বাচন : দ্বিতীয় ধাপে চেয়ারম্যান পদে যারা বিজয়ী

আপডেট সময় ১২:২২:৩২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০২৪

দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা নির্বাচনেও একচেটিয়া জয় পেয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা। ১৫৬ উপজেলার মধ্যে ১৩৬টিতে জিতেছেন দলটির নেতারা। এ ছাড়া বিএনপির বহিষ্কৃত ছয় নেতা, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের এক, জাতীয় পার্টির (জেপি) এক (পদত্যাগী), আঞ্চলিক দল থেকে দুই ও বাকিগুলোতে স্বতন্ত্র প্রার্থীরা বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

ঢাকা বিভাগ 

ঢাকার সাভারে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনজুরুল আলম রাজীব ও ধামরাইয়ে ঢাকা জেলা যুবলীগের সাবেক নেতা আবদুল লতিফ; গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুক্তার হোসেন ও মুকসুদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য কাবির মিয়া; নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান কালাম, রূপগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব ও আড়াইহাজারে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য সাইফুল ইসলাম স্বপন; গাজীপুরের কালিয়াকৈরে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক সেলিম আজাদ এবং শ্রীপুরে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী রুমানা আলী টুসির ভাই জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জামিল হাসান দুর্জয়; রাজবাড়ী সদরে জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য এস এম নওয়াব আলী, গোয়ালন্দে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তফা মুন্সী ও বালিয়াকান্দিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এহসানুল হাকিম সাধন; মানিকগঞ্জের শিবালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আবদুর রহিম খান, ঘিওরে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মাহাবুবুর রহমান জনি ও দৌলতপুরে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সম্পাদক এস এম শফিকুল ইসলাম; ফরিদপুরের নগরকান্দায় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সাবেক সহসম্পাদক কাজী শাহ্‌ জামান বাবুল ও সালথায় গোট্টি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সম্পাদক ওয়াদুদ মাতুব্বর; মাদারীপুরের কালকিনিতে তৌহিদুজ্জামান শাহীন, শরীয়তপুর সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান আকন্দ উজ্জ্বল ও জাজিরায় জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ইদ্রিস ফরাজী; নরসিংদীর বেলাবোতে আওয়ামী লীগ নেতা শমসের জামান ভূঁইয়া রিটন ও মনোহরদীতে শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূনের ভাই জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য নজরুল মজিদ মাহমুদ স্বপন; টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য নার্গিস বেগম, কালিহাতীতে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের আজাদ সিদ্দিকী ও ঘাটাইলে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য আরিফ হোসেন; মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বি এম শোয়েব ও টুঙ্গিবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আমিরুল ইসলাম হালদার; কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে আওয়ামী লীগ নেতা মইনুজ্জামান অপু, নিকলীতে স্বতন্ত্র মোকাররম সরদার ও অষ্টগ্রামে আওয়ামী লীগ নেতা এ এস মাসুক নাজিম।

চট্টগ্রাম বিভাগ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি সাইদুর রহমান স্বপন, আখাউড়ায় উপজেলা যুবলীগের সাবেক আহ্বায়ক মনির হোসেন; কুমিল্লা সদর দক্ষিণে মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল হাই বাবলু, বরুড়ায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর শ্যালক হামিদ লতিফ ভূঁইয়া, চাঁদপুর সদরে উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক হুমায়ুন কবির সুমন, শাহরাস্তিতে আওয়ামী লীগ সমর্থক মকবুল হোসেন, হাজীগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হেলাল উদ্দিন; লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক ইমতিয়াজ আহমেদ, রায়পুরে অধ্যক্ষ মামুনুর রশীদ; নোয়াখালীর চাটখিলে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর কবির, সোনাইমুড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাবুল বাবু, সেনবাগে স্থানীয় সংসদ সদস্য মোর্শেদ আলমের ছেলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য সাইফুল আলম দিপু, চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় আবুল কাশেম চিশতি, ফটিকছড়িতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন মুহুরী, হাটহাজারীতে উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ইউনুস গণি চৌধুরী, কক্সবাজারের ঈদগাঁওয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু তালেব, চকরিয়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি ফজলুল করিম সাইদি ও পেকুয়ায় যুবদলের বহিষ্কৃত নেতা সাফায়েত আজিজ রাজু; খাগড়াছড়ি সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক দিদারুল আলম, দীঘিনালায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ধর্মজ্যোতি চাকমা, পানছড়িতে ইউপিডিএফ (মূল) নেতা চন্দ্রদেব চাকমা; রাঙামাটির কাপ্তাইয়ে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি নাছির উদ্দীন, বিলাইছড়িতে জেএসএস সমর্থিত প্রার্থী বীরোত্তম তংচংগ্যা, রাজস্থলীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি উবাচ মারমা; বান্দরবানের লামায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তফা জামাল ও নাইক্ষ্যংছড়িতে বিএনপির সাবেক নেতা তোফায়েল আহমেদ।

রাজশাহী বিভাগ

জয়পুরহাট সদরে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান মিঠু, পাঁচবিবিতে স্বতন্ত্র সাবেকুন্নাহার শিখা; বগুড়ার দুপচাঁচিয়ায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আহমেদুর রহমান বিপ্লব, আদমদীঘিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম রাজু, কাহালুতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আল হাসিবুল হাসান সুরুজ; চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সৈয়দ নজরুল ইসলাম; নওগাঁর সাপাহারে উপজেলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি শাহজাহান হোসেন মণ্ডল, পোরশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি শাহ মনজুর মোরশেদ, নিয়ামতপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ফরিদ আহমেদ; রাজশাহীর পুঠিয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সামাদ, বাগমারায় জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি জাকিরুল সান্টু, দুর্গাপুরে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সম্পাদক শরিফুজ্জামান শরীফ; নাটোরের লালপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্পাদক শামীম আহমেদ সাগর, বাগাতিপাড়ায় বিএনপির বহিষ্কৃত নেতা এস এম জাহাঙ্গীর; সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সেলিনা মির্জা, তাড়াশে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি; পাবনার চাটমোহরে আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত নেতা মির্জা রেজাউল করিম দুলাল, ভাঙ্গুড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম হাসনাইন রাসেল ও ফরিদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি খলিলুর রহমান সরকার।

খুলনা বিভাগ

মেহেরপুরের গাংনীতে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ খালেক; কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল মান্নান খান, ভেড়ামারায় পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু হেনা মোস্তফা মুকুল, মিরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুল হালিম, দৌলতপুরে জেলা যুবলীগের সভাপতি বুলবুল আহমেদ টোকেন; চুয়াডাঙ্গা সদরে জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক নঈম হাসান জোয়ার্দার ও আলমডাঙ্গায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা কে এম মনজিলুর রহমান; ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডুতে ব্যবসায়ী (আওয়ামী লীগে পদ নেই) সাইফুল ইসলাম টিপু, শৈলকুপায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আরিফ রেজা মুন্নু; যশোরের চৌগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম হাবিবুর রহমান, ঝিকরগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মনিরুল ইসলাম, শার্শায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি সোহরাব হোসেন; মাগুরার শালিখায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শ্যামল কুমার দে, মহম্মদপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল মান্নান; নড়াইল সদরে জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আজিজুর রহমান ভূঁইয়া, লোহাগড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এ কে এম ফয়জুল হক রোম; বাগেরহাটের ফকিরহাটে উপজেলা যুবলীগের স্থগিত কমিটির সভাপতি শেখ ওয়াহিদুজ্জামান বাবু, মোল্লাহাটে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীনুল আলম ছানা, চিতলমারীতে আওয়ামী লীগ কর্মী আবু জাফর মো. আলমগীর হোসেন; খুলনার তেরখাদায় জেলা মৎস্যজীবী লীগের সহসভাপতি আবুল হাসান শেখ, দীঘলিয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক নেতা শেখ মারুফুল ইসলাম, ফুলতলায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আকরাম হোসেন; সাতক্ষীরার তালায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ঘোষ সনৎ কুমার, দেবহাটায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আল ফেরদাউস আলফা ও আশাশুনিতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ বি এম মোস্তাকীম।

রংপুর বিভাগ

পঞ্চগড়ের বোদায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফারুক আলম টবি, দেবীগঞ্জে শালডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মদন মোহন রায়; ঠাকুরগাঁও সদরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোছারুল ইসলাম সরকার, রাণীশংকৈলে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আহম্মদ হোসেন বিপ্লব; নীলফামারীর সৈয়দপুরে বিএনপির বহিষ্কৃত যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়াদ হাসান সরকার রানা, কিশোরগঞ্জে স্বতন্ত্র আবদুর রশিদ, জলঢাকায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আনসার আলী মিন্টু; দিনাজপুরের বিরলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, কাহারোলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ কে এম ফারুক, বীরগঞ্জে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি আবু হোসাইন বিপু, বোচাগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আফসার আলী; লালমনিরহাটের কালীগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুজ্জামান আহমেদ, আদিতমারীতে আওয়ামী লীগের ইমরুল কায়েস ফারুক; রংপুরের মিঠাপুকুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য কামরুজ্জামান কামরু, পীরগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা নূর মোহাম্মদ মণ্ডল; কুড়িগ্রামের রাজারহাটে রংপুর জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য জাহিদ ইকবাল সারওয়ার্দী বাপ্পী, উলিপুরে জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য সাজাদুর রহমান সাজু, সদরে জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক মঞ্জুরুল ইসলাম রতন; গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাকিল আলম ও গাইবান্ধা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আমিনুজ্জামান রিংকু (এগিয়ে)।

বরিশাল বিভাগ

বরিশালের হিজলায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক আলতাফ মাহমুদ দিপু সিকদার, মুলাদীতে যুবলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক জহিরউদ্দিন খসরু; পটুয়াখালীর দশমিনায় উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক ইকবাল হোসেন হাওলাদার, গলাচিপায় উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক ওয়ানা মার্জিয়া নিতু, বাউফলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মোশারফ হোসেন খান; পিরোজপুরের কাউখালীতে জাতীয় পার্টির (জেপি-মঞ্জু) পদত্যাগকারী উপজেলা সভাপতি আবু সাঈদ মিঞা মনু, নেছারাবাদে উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আবদুল হক; বরগুনা সদরে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মনিরুল ইসলাম, বেতাগীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খলিলুর রহমান খান; ঝালকাঠি সদরে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি খান আরিফুর রহমান, নলছিটিতে স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা সালাহ উদ্দিন খান সেলিম; ভোলা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. ইউনুছ, দৌলতখানে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মঞ্জুর আলম খান, বোরহানউদ্দিনে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও আলী আজম মুকুল এমপির ভগ্নিপতি জাফর উল্লাহ।

সিলেট বিভাগ

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক মজির উদ্দিন, জৈন্তাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম লিয়াকত আলী, গোয়াইনঘাটে জেলা বিএনপির বহিষ্কৃত নেতা শাহ আলম স্বপন; সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শামীম আহমেদ মুরাদ, তাহিরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আফতাব উদ্দিন, বিশ্বম্ভরপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক রফিকুল ইসলাম তালুকদার, জামালগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি রেজাউল করিম শামীম; মৌলভীবাজারে রাজনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য শাহজাহান খান; হবিগঞ্জের বাহুবলে স্বতন্ত্র আনোয়ার হোসাইন, নবীগঞ্জে উপজেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক মুজিবুর রহমান চৌধুরী সেফু।

ময়মনসিংহ বিভাগ

ময়মনসিংহ সদরে উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবু সাঈদ, মুক্তাগাছায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবদুল হাই আকন্দ, গৌরীপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সোমনাথ সাহা; জামালপুরের বকশীগঞ্জে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি নজরুল ইসলাম সাত্তার, দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, ইসলামপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুস সালাম; শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোশারফ হোসেন, নকলায় পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম সোহাগ; নেত্রকোনা সদরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মারুফ হাসান খান অভ্র, পূর্বধলায় জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য এ টি এম ফয়জুর সিরাজ জুয়েল ও বারহাট্টায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী সাখাওয়াত হোসেন বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন।