ঢাকা ০৮:৫৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বোলারদের দুঃস্বপ্নের আইপিএল; ১২৬০ ছক্কা, ২১৭৪ চার

  • ডিপি ডেস্ক
  • আপডেট সময় ০২:৫৯:০৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪
  • 11

ডিপি ডেস্ক

গত ২২ মার্চ চেন্নাই সুপার কিংস ও রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর ম্যাচ দিয়ে শুরু হয়েছিল ২০২৪ সালের আইপিএল। গতকাল রাতে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে কলকাতা নাইট রাইডার্সের শিরোপা জেতার মধ্য দিয়ে শেষ হলো এবারের টুর্নামেন্ট। যাতে ব্যাটিংয়ে দেখা গেছে নতুন সব রেকর্ড, আর বোলাররা হয়ে পড়েছেন কোণঠাসা। যদিও ফাইনালে শেষ পর্যন্ত কলকাতার বোলিং দাপটের কাছেই হার মেনেছে হায়দরাবাদের বিস্ফোরক ব্যাটিং। ২০২৪ আইপিএলের উল্লেখযোগ্য কিছু রেকর্ড—


৯.৫৬
২০২৪ মৌসুমে ওভারপ্রতি রান। আইপিএলের এক মৌসুমে যা সর্বোচ্চ। আগের রেকর্ড ছিল গত মৌসুমে, উঠেছিল ওভারপ্রতি ৮.৯৯ রান।

২৯.৪১
এবারের আইপিএলে উইকেটপ্রতি রান। এটিও লিগটির ইতিহাসে সর্বোচ্চ। এ মৌসুম ছাড়িয়ে গেছে ২০২০-২১ মৌসুমে উইকেটপ্রতি ২৮.৯৭ রানের রেকর্ড। আইপিএলের সে মৌসুম হয়েছিল সংযুক্ত আরব আমিরাতে।

১২৬০
এবার আইপিএল দেখেছে মোট ১২৬০টি ছক্কা, আগের রেকর্ডের চেয়ে যা ১৩৬টি বেশি। ২০২৩ সালে ৭৪টি ম্যাচে হয়েছিল ১১২৪টি ছক্কা।

৪২
সর্বোচ্চ ৪২টি ছক্কা মেরেছেন হায়দরাবাদের অভিষেক শর্মা। এক মৌসুমে কোনো ভারতীয় ব্যাটসম্যানের সর্বোচ্চ ছক্কারও রেকর্ড এটি। সব মিলিয়ে অভিষেক আছেন তালিকার ছয়ে। শীর্ষে পাঁচে তিনবারই আছে ক্রিস গেইলের নাম, একবার করে আছেন জস বাটলার ও আন্দ্রে রাসেল।

২১৭৪
২০২৩ সালের আইপিএলে ছিল ২১৭৪টি চার। ২০২৪ সালের আইপিএলও দেখেছে ২১৭৪টি চারই। এক মৌসুমে এখন এটিই যৌথভাবে সর্বোচ্চ চারের রেকর্ড।

১৪
সেঞ্চুরির নতুন রেকর্ডও গড়ল ২০২৪ সালের আইপিএল। এবার তিন অঙ্কের ইনিংস দেখা গেছে ১৪টি। ২০২৩ সালে সংখ্যাটি ছিল ১২। আর কোনো মৌসুমে দুই অঙ্কের সেঞ্চুরির সংখ্যা নেই।

১৫০.৫৮
এবারের আইপিএলে ব্যাটসম্যানের সমন্বিত স্ট্রাইক রেট, যেটিও এক মৌসুমে সর্বোচ্চ। গত মৌসুমে এটি ছিল ১৪১.৭১।


২৮৭/৩।
২৭৭/৩।
২৭২/৭।
২৬৬/৭।

আইপিএলের ইতিহাসের সর্বোচ্চ চারটি স্কোরই এসেছে ২০২৪ সালে। এর মধ্যে ৭ উইকেটে ২৭২ রানের স্কোরটি শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন কলকাতার। বাকি তিনটিই ফাইনালে কলকাতার কাছে হারা হায়দরাবাদের।

৪১
সব মিলিয়ে এ মৌসুমে ৪১টি ২০০ রানের স্কোর দেখেছে আইপিএল। এক মৌসুমে যা সবচেয়ে বেশি। ২০২৪ সাল ছাড়িয়ে গেল ২০২৩ সালকে, গতবার এমন স্কোর ছিল ২৩টি। ২০২৩ সালের আগে আইপিএলের এক মৌসুমে সবচেয়ে বেশি ২০০ রানের স্কোর ছিল ২০২২ সালে—১৮টি।

২৭
শতরানের জুটিতেও নতুন রেকর্ড গড়েছে ২০২৪ সালের আইপিএল। এবার এমন জুটি ছিল ২৭টি। আগের সর্বোচ্চ ২৪টি শতরানের জুটি এসেছিল গতবার। এবার অবশ্য ২৫টি ভিন্ন জুটি মিলে এমন রেকর্ড গড়েছে, গত মৌসুমে জুটির সংখ্যা ছিল ১৭।


সব মিলিয়ে মাত্র ৯টি মেডেন করতে পেরেছেন বোলাররা। এক মৌসুমে যেটি সর্বনিম্ন। এর আগে ২০০৯-১০ ও ২০১৭ সালে এক মৌসুমে যৌথভাবে সর্বনিম্ন ১৩টি করে মেডেন ওভার ছিল।

৮৮৩
আইপিএলে এবার সব মিলিয়ে পড়েছে ৮৮৩টি উইকেট। গত তিন মৌসুমের মধ্যে যা সর্বনিম্ন। সবচেয়ে কম ৬৬৫টি উইকেট পড়েছিল ২০১৬ সালে।

বোলারদের দুঃস্বপ্নের আইপিএল; ১২৬০ ছক্কা, ২১৭৪ চার

আপডেট সময় ০২:৫৯:০৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪

ডিপি ডেস্ক

গত ২২ মার্চ চেন্নাই সুপার কিংস ও রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর ম্যাচ দিয়ে শুরু হয়েছিল ২০২৪ সালের আইপিএল। গতকাল রাতে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে কলকাতা নাইট রাইডার্সের শিরোপা জেতার মধ্য দিয়ে শেষ হলো এবারের টুর্নামেন্ট। যাতে ব্যাটিংয়ে দেখা গেছে নতুন সব রেকর্ড, আর বোলাররা হয়ে পড়েছেন কোণঠাসা। যদিও ফাইনালে শেষ পর্যন্ত কলকাতার বোলিং দাপটের কাছেই হার মেনেছে হায়দরাবাদের বিস্ফোরক ব্যাটিং। ২০২৪ আইপিএলের উল্লেখযোগ্য কিছু রেকর্ড—


৯.৫৬
২০২৪ মৌসুমে ওভারপ্রতি রান। আইপিএলের এক মৌসুমে যা সর্বোচ্চ। আগের রেকর্ড ছিল গত মৌসুমে, উঠেছিল ওভারপ্রতি ৮.৯৯ রান।

২৯.৪১
এবারের আইপিএলে উইকেটপ্রতি রান। এটিও লিগটির ইতিহাসে সর্বোচ্চ। এ মৌসুম ছাড়িয়ে গেছে ২০২০-২১ মৌসুমে উইকেটপ্রতি ২৮.৯৭ রানের রেকর্ড। আইপিএলের সে মৌসুম হয়েছিল সংযুক্ত আরব আমিরাতে।

১২৬০
এবার আইপিএল দেখেছে মোট ১২৬০টি ছক্কা, আগের রেকর্ডের চেয়ে যা ১৩৬টি বেশি। ২০২৩ সালে ৭৪টি ম্যাচে হয়েছিল ১১২৪টি ছক্কা।

৪২
সর্বোচ্চ ৪২টি ছক্কা মেরেছেন হায়দরাবাদের অভিষেক শর্মা। এক মৌসুমে কোনো ভারতীয় ব্যাটসম্যানের সর্বোচ্চ ছক্কারও রেকর্ড এটি। সব মিলিয়ে অভিষেক আছেন তালিকার ছয়ে। শীর্ষে পাঁচে তিনবারই আছে ক্রিস গেইলের নাম, একবার করে আছেন জস বাটলার ও আন্দ্রে রাসেল।

২১৭৪
২০২৩ সালের আইপিএলে ছিল ২১৭৪টি চার। ২০২৪ সালের আইপিএলও দেখেছে ২১৭৪টি চারই। এক মৌসুমে এখন এটিই যৌথভাবে সর্বোচ্চ চারের রেকর্ড।

১৪
সেঞ্চুরির নতুন রেকর্ডও গড়ল ২০২৪ সালের আইপিএল। এবার তিন অঙ্কের ইনিংস দেখা গেছে ১৪টি। ২০২৩ সালে সংখ্যাটি ছিল ১২। আর কোনো মৌসুমে দুই অঙ্কের সেঞ্চুরির সংখ্যা নেই।

১৫০.৫৮
এবারের আইপিএলে ব্যাটসম্যানের সমন্বিত স্ট্রাইক রেট, যেটিও এক মৌসুমে সর্বোচ্চ। গত মৌসুমে এটি ছিল ১৪১.৭১।


২৮৭/৩।
২৭৭/৩।
২৭২/৭।
২৬৬/৭।

আইপিএলের ইতিহাসের সর্বোচ্চ চারটি স্কোরই এসেছে ২০২৪ সালে। এর মধ্যে ৭ উইকেটে ২৭২ রানের স্কোরটি শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন কলকাতার। বাকি তিনটিই ফাইনালে কলকাতার কাছে হারা হায়দরাবাদের।

৪১
সব মিলিয়ে এ মৌসুমে ৪১টি ২০০ রানের স্কোর দেখেছে আইপিএল। এক মৌসুমে যা সবচেয়ে বেশি। ২০২৪ সাল ছাড়িয়ে গেল ২০২৩ সালকে, গতবার এমন স্কোর ছিল ২৩টি। ২০২৩ সালের আগে আইপিএলের এক মৌসুমে সবচেয়ে বেশি ২০০ রানের স্কোর ছিল ২০২২ সালে—১৮টি।

২৭
শতরানের জুটিতেও নতুন রেকর্ড গড়েছে ২০২৪ সালের আইপিএল। এবার এমন জুটি ছিল ২৭টি। আগের সর্বোচ্চ ২৪টি শতরানের জুটি এসেছিল গতবার। এবার অবশ্য ২৫টি ভিন্ন জুটি মিলে এমন রেকর্ড গড়েছে, গত মৌসুমে জুটির সংখ্যা ছিল ১৭।


সব মিলিয়ে মাত্র ৯টি মেডেন করতে পেরেছেন বোলাররা। এক মৌসুমে যেটি সর্বনিম্ন। এর আগে ২০০৯-১০ ও ২০১৭ সালে এক মৌসুমে যৌথভাবে সর্বনিম্ন ১৩টি করে মেডেন ওভার ছিল।

৮৮৩
আইপিএলে এবার সব মিলিয়ে পড়েছে ৮৮৩টি উইকেট। গত তিন মৌসুমের মধ্যে যা সর্বনিম্ন। সবচেয়ে কম ৬৬৫টি উইকেট পড়েছিল ২০১৬ সালে।