ঢাকা ০৩:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ২ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঈদে মুক্তি পাচ্ছে ৮ ছবি!

  • ডিপি ডেস্ক
  • আপডেট সময় ১১:৪২:১৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪
  • 10

গত ঈদুল ফিতরে ১১টি সিনেমা মুক্তি পেয়েছিল। গত কয়েক বছরের সংখ্যায় এটা সর্বোচ্চ। এবার মুক্তির দিক দিয়ে সংখ্যা তেমনটা হওয়ার সম্ভাবনা নেই। কিছুদিন আগে যদিও শোনা গিয়েছিল, ডজনখানেক ছবি আগামী ঈদে মুক্তি পেতে পারে। তবে এখনো নানা ধরনের হিসাব–নিকাশ চলছে।

গতকাল পর্যন্ত ৮টি ছবি মুক্তির কথা শোনা যাচ্ছে। শেষ মুহূর্তে সংখ্যাটা আরও কমতে পারে, এমনটাই ধারণা করছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা।
ঈদুল আজহায় মুক্তির তালিকায় থাকা সম্ভাব্য সব ছবি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্টদের মধ্যে। সম্ভাব্য মুক্তির তালিকায় থাকা ছবি হলো ‘তুফান’, ‘নীলচক্র’, ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’, ‘এশা মার্ডার’, ‘ময়ূরাক্ষী’, ‘পুলসিরাত’ ও ‘ডার্ক ওয়ার্ল্ড’। ঈদে মুক্তির তালিকায় থাকা ছবির মধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচনা ‘তুফান’ ঘিরে। অন্য ছবির মধ্যে ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’, ‘নীলচক্র’ ছবিগুলোও নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে চর্চা হচ্ছে। এসব ছবির পোস্টার লুক, শুটিং সেট থেকে ফাঁস হওয়া অভিনেতার ছবি, ছবির ফেনমেড পোস্টার ফেসবুকে চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন গ্রুপে আলোচনা চলছে।

তবে আগামী ঈদুল আজহায় সম্ভাব্য মুক্তির ছবির সংখ্যা নিয়ে ভিন্ন চিত্র দেখা যেতে পারে। চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা মনে করছেন হল সংকটের মধ্যে ঈদুল ফিতরে একসঙ্গে অনেকগুলো ছবি মুক্তি দিয়ে অনেক প্রযোজকই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। সেই অভিজ্ঞতা থেকে শেষ পর্যন্ত ঈদুল আজহায় ছবি মুক্তির সংখ্যা বেশি হলে অনেকেই ছবি মুক্তিতে ঝুঁকি নিতে চাইবে না। শেষ মুহূর্তে এসে কোনো কোনো প্রযোজক সম্ভাব্য মুক্তির তালিকা থেকে ছবি সরিয়ে নিতে পারেন। এ হিসাবে এবার বড়জোর চার থেকে পাঁচটি ছবি মুক্তি পেতে পারে।

এরই মধ্যে ‘তুফান’, ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’ ও ‘এশা মার্ডার’, ‘ময়ূরাক্ষী’ ছবিগুলো মুক্তি নিশ্চিত করেছে সংশ্লিষ্ট প্রযোজক–পরিচালকেরা। ‘এশা মার্ডার’ ছবির পরিচালক সানী সানোয়ার বলেন, ‘আমাদের ছবির শুটিং আগেই শেষ হয়েছে। মুক্তির জন্যও প্রস্তুত। শিগগিরই সেন্সর বোর্ডে জমা পড়বে। তবে ঈদুল ফিতরের মতো এবারও যদি একই সংখ্যক ছবি একসঙ্গে মুক্তি পায় এবং হল পেতে যুদ্ধ করতে হয়—তাহলে ঈদ উৎসব থেকে সরেও আসতে পারি।’ ছবিতে অভিনয় করেছেন আজমেরী হক বাঁধন, পূজা ক্রুজ, সুমিত সেনগুপ্ত ও মিশা সওদাগর প্রমুখ।

‘তুফান’ ও ‘জংলি’ ছবি দুটিও ঈদুল আজহায় মুক্তি চূড়ান্ত। ছবি দুটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে তা নিশ্চিত করা হয়েছে। গত মাসের মাঝামাঝি থেকে ভারতে ‘তুফান’ ছবির শুটিং শুরু হয়। এখনো চলছে। যৌথভাবে ছবিটির প্রযোজনায় আছে বাংলাদেশের চরকি ও আলফা আই এবং ভারতের ভেঙ্কটেশ ফিল্মস (এসভিএফ)। ছবির অন্যতম প্রযোজক শাহরিয়ার শাকিল বলেন, ‘কোনো ধরনের প্রাকৃতিক দুর্যোগের মুখোমুখি যদি না হই, শতভাগ নিশ্চয়তা দিচ্ছি, ঈদুল আজহায় তুফান মুক্তি পাবে।

এরই মধ্য ছবির আবহ সংগীতের কাজ ৭০ ভাগ শেষ হয়েছে। শুটিং চলছে, পাশাপাশি সম্পাদনা, গানের কাজও চলছে। বড় কথা, ছবির প্রি–প্রোডাকশনের কাজ আগে থেকেই ভালোভাবে করা থাকলে শুটিং ও পোস্ট–প্রোডাকশনের কাজ সহজেই হয়ে যায়, যা এই ছবিতে আমরা ভালোভাবেই করতে পেরেছি। সব মিলিয়ে বলতে পারি, ঈদুল আজহায় “তুফান” মুক্তি দিতে পারব। এরই মধ্যে ছবিটি চালাতে বেশ আগ্রহী হলমালিকেরা। অনেকে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু করেছেন।’ রায়হান রাফী পরিচালিত ‘তুফান’ ছবিতে তুফান চরিত্রে আছেন শাকিব খান। আরও আছেন চঞ্চল চৌধুরী, নাবিলা, মিশা সওদাগর, ফজলুর রহমান বাবু এবং ভারতের মিমি চক্রবর্তী প্রমুখ।

সিয়াম ও বুবলীকে নিয়ে ‘জংলি’ ছবির শুটিংও প্রায় শেষের পথে। ছবির পরিচালক এম রাহিম বলেন, ‘আমরা ছয় মাস আগে থেকেই প্রি–প্রোডাকশনের কাজ শুরু করেছিলাম। শেষ করে তারপর শুরু করেছি শুটিং। কোনো ঝামেলা ছাড়াই সুন্দরভাবে শুটিং চলছে। আশা করছি, ঈদের আগেই ছবিটির মুক্তির সব প্রস্তুতি শেষ করতে পারব।’

২০১৯ সালের ‘মেনস ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী–চ্যানেল আই হিরো—কে হবে মাসুদ রানা’ বিজয়ী রাসেল রানাকে নিয়ে কয়েক বছর ধরে তৈরি হচ্ছে সিনেমা “মাসুদ রানা”। শুটিংও প্রায় শেষের পথে। ছবির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জাজ মাল্টিমিডিয়া জানিয়েছে, ঈদুল আজহায় মুক্তি পাবে ছবিটি। এই ছবির পরিচালক সৈকত নাসির বললেন, ‘তিন-চারটি দৃশ্যের শুটিং বাকি ছিল। চলতি মাসেই তা শেষ হবে। শুটিং করা অংশের সম্পাদনা, ডাবিংয়ের কাজ প্রায় শেষ। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে ঈদের এক মাস আগেই পোস্ট প্রোডাকশনের সব কাজ শেষ করে দিতে বলেছে। এখন সেই কাজই করছি।’ কাজী আনোয়ার হোসেনের থ্রিলার সিরিজ ‘ধ্বংস পাহাড়’ থেকে তৈরি এই ছবিতে রাসেল রানার বিপরীতে অভিনয় করেছেন পূজা চেরী।

নির্মাতা রাশিদ পলাশ জানিয়েছেন, তাঁর পরিচালিত ‘ময়ূরাক্ষী’ও ঈদুল আজহায় মুক্তি পাবে। এরই মধ্যে ছবির পোস্টার লুক প্রকাশিত হয়েছে। পরিচালক বললেন, ‘ঈদুল আজহায় মুক্তির পরিকল্পনা নিয়ে এগোচ্ছি আমরা।’ ছবিতে অভিনয় করেছেন ববি, সুদীপ বিশ্বাস, সাদিয়া মাহি, সুমিত সেনগুপ্ত, সমু চৌধুরী প্রমুখ।
আরিফিন শুভ ও মন্দিরা চক্রবর্তীকে নিয়ে মিঠু খানের ‘নীলচক্র’, রোশান ও বুবলীকে নিয়ে রাখাল সবুজের ‘পুলসিরাত’ এবং মোস্তাফিজুর রহমান মানিকের ‘ডার্ক ওয়ার্ল্ড’ ছবিটিও ঈদুল আজহায় মুক্তির কথা শোনা যাচ্ছে।

ঈদে মুক্তি পাচ্ছে ৮ ছবি!

আপডেট সময় ১১:৪২:১৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪

গত ঈদুল ফিতরে ১১টি সিনেমা মুক্তি পেয়েছিল। গত কয়েক বছরের সংখ্যায় এটা সর্বোচ্চ। এবার মুক্তির দিক দিয়ে সংখ্যা তেমনটা হওয়ার সম্ভাবনা নেই। কিছুদিন আগে যদিও শোনা গিয়েছিল, ডজনখানেক ছবি আগামী ঈদে মুক্তি পেতে পারে। তবে এখনো নানা ধরনের হিসাব–নিকাশ চলছে।

গতকাল পর্যন্ত ৮টি ছবি মুক্তির কথা শোনা যাচ্ছে। শেষ মুহূর্তে সংখ্যাটা আরও কমতে পারে, এমনটাই ধারণা করছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা।
ঈদুল আজহায় মুক্তির তালিকায় থাকা সম্ভাব্য সব ছবি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্টদের মধ্যে। সম্ভাব্য মুক্তির তালিকায় থাকা ছবি হলো ‘তুফান’, ‘নীলচক্র’, ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’, ‘এশা মার্ডার’, ‘ময়ূরাক্ষী’, ‘পুলসিরাত’ ও ‘ডার্ক ওয়ার্ল্ড’। ঈদে মুক্তির তালিকায় থাকা ছবির মধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচনা ‘তুফান’ ঘিরে। অন্য ছবির মধ্যে ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’, ‘নীলচক্র’ ছবিগুলোও নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে চর্চা হচ্ছে। এসব ছবির পোস্টার লুক, শুটিং সেট থেকে ফাঁস হওয়া অভিনেতার ছবি, ছবির ফেনমেড পোস্টার ফেসবুকে চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন গ্রুপে আলোচনা চলছে।

তবে আগামী ঈদুল আজহায় সম্ভাব্য মুক্তির ছবির সংখ্যা নিয়ে ভিন্ন চিত্র দেখা যেতে পারে। চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা মনে করছেন হল সংকটের মধ্যে ঈদুল ফিতরে একসঙ্গে অনেকগুলো ছবি মুক্তি দিয়ে অনেক প্রযোজকই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। সেই অভিজ্ঞতা থেকে শেষ পর্যন্ত ঈদুল আজহায় ছবি মুক্তির সংখ্যা বেশি হলে অনেকেই ছবি মুক্তিতে ঝুঁকি নিতে চাইবে না। শেষ মুহূর্তে এসে কোনো কোনো প্রযোজক সম্ভাব্য মুক্তির তালিকা থেকে ছবি সরিয়ে নিতে পারেন। এ হিসাবে এবার বড়জোর চার থেকে পাঁচটি ছবি মুক্তি পেতে পারে।

এরই মধ্যে ‘তুফান’, ‘জংলি’, ‘মাসুদ রানা’ ও ‘এশা মার্ডার’, ‘ময়ূরাক্ষী’ ছবিগুলো মুক্তি নিশ্চিত করেছে সংশ্লিষ্ট প্রযোজক–পরিচালকেরা। ‘এশা মার্ডার’ ছবির পরিচালক সানী সানোয়ার বলেন, ‘আমাদের ছবির শুটিং আগেই শেষ হয়েছে। মুক্তির জন্যও প্রস্তুত। শিগগিরই সেন্সর বোর্ডে জমা পড়বে। তবে ঈদুল ফিতরের মতো এবারও যদি একই সংখ্যক ছবি একসঙ্গে মুক্তি পায় এবং হল পেতে যুদ্ধ করতে হয়—তাহলে ঈদ উৎসব থেকে সরেও আসতে পারি।’ ছবিতে অভিনয় করেছেন আজমেরী হক বাঁধন, পূজা ক্রুজ, সুমিত সেনগুপ্ত ও মিশা সওদাগর প্রমুখ।

‘তুফান’ ও ‘জংলি’ ছবি দুটিও ঈদুল আজহায় মুক্তি চূড়ান্ত। ছবি দুটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে তা নিশ্চিত করা হয়েছে। গত মাসের মাঝামাঝি থেকে ভারতে ‘তুফান’ ছবির শুটিং শুরু হয়। এখনো চলছে। যৌথভাবে ছবিটির প্রযোজনায় আছে বাংলাদেশের চরকি ও আলফা আই এবং ভারতের ভেঙ্কটেশ ফিল্মস (এসভিএফ)। ছবির অন্যতম প্রযোজক শাহরিয়ার শাকিল বলেন, ‘কোনো ধরনের প্রাকৃতিক দুর্যোগের মুখোমুখি যদি না হই, শতভাগ নিশ্চয়তা দিচ্ছি, ঈদুল আজহায় তুফান মুক্তি পাবে।

এরই মধ্য ছবির আবহ সংগীতের কাজ ৭০ ভাগ শেষ হয়েছে। শুটিং চলছে, পাশাপাশি সম্পাদনা, গানের কাজও চলছে। বড় কথা, ছবির প্রি–প্রোডাকশনের কাজ আগে থেকেই ভালোভাবে করা থাকলে শুটিং ও পোস্ট–প্রোডাকশনের কাজ সহজেই হয়ে যায়, যা এই ছবিতে আমরা ভালোভাবেই করতে পেরেছি। সব মিলিয়ে বলতে পারি, ঈদুল আজহায় “তুফান” মুক্তি দিতে পারব। এরই মধ্যে ছবিটি চালাতে বেশ আগ্রহী হলমালিকেরা। অনেকে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু করেছেন।’ রায়হান রাফী পরিচালিত ‘তুফান’ ছবিতে তুফান চরিত্রে আছেন শাকিব খান। আরও আছেন চঞ্চল চৌধুরী, নাবিলা, মিশা সওদাগর, ফজলুর রহমান বাবু এবং ভারতের মিমি চক্রবর্তী প্রমুখ।

সিয়াম ও বুবলীকে নিয়ে ‘জংলি’ ছবির শুটিংও প্রায় শেষের পথে। ছবির পরিচালক এম রাহিম বলেন, ‘আমরা ছয় মাস আগে থেকেই প্রি–প্রোডাকশনের কাজ শুরু করেছিলাম। শেষ করে তারপর শুরু করেছি শুটিং। কোনো ঝামেলা ছাড়াই সুন্দরভাবে শুটিং চলছে। আশা করছি, ঈদের আগেই ছবিটির মুক্তির সব প্রস্তুতি শেষ করতে পারব।’

২০১৯ সালের ‘মেনস ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী–চ্যানেল আই হিরো—কে হবে মাসুদ রানা’ বিজয়ী রাসেল রানাকে নিয়ে কয়েক বছর ধরে তৈরি হচ্ছে সিনেমা “মাসুদ রানা”। শুটিংও প্রায় শেষের পথে। ছবির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জাজ মাল্টিমিডিয়া জানিয়েছে, ঈদুল আজহায় মুক্তি পাবে ছবিটি। এই ছবির পরিচালক সৈকত নাসির বললেন, ‘তিন-চারটি দৃশ্যের শুটিং বাকি ছিল। চলতি মাসেই তা শেষ হবে। শুটিং করা অংশের সম্পাদনা, ডাবিংয়ের কাজ প্রায় শেষ। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে ঈদের এক মাস আগেই পোস্ট প্রোডাকশনের সব কাজ শেষ করে দিতে বলেছে। এখন সেই কাজই করছি।’ কাজী আনোয়ার হোসেনের থ্রিলার সিরিজ ‘ধ্বংস পাহাড়’ থেকে তৈরি এই ছবিতে রাসেল রানার বিপরীতে অভিনয় করেছেন পূজা চেরী।

নির্মাতা রাশিদ পলাশ জানিয়েছেন, তাঁর পরিচালিত ‘ময়ূরাক্ষী’ও ঈদুল আজহায় মুক্তি পাবে। এরই মধ্যে ছবির পোস্টার লুক প্রকাশিত হয়েছে। পরিচালক বললেন, ‘ঈদুল আজহায় মুক্তির পরিকল্পনা নিয়ে এগোচ্ছি আমরা।’ ছবিতে অভিনয় করেছেন ববি, সুদীপ বিশ্বাস, সাদিয়া মাহি, সুমিত সেনগুপ্ত, সমু চৌধুরী প্রমুখ।
আরিফিন শুভ ও মন্দিরা চক্রবর্তীকে নিয়ে মিঠু খানের ‘নীলচক্র’, রোশান ও বুবলীকে নিয়ে রাখাল সবুজের ‘পুলসিরাত’ এবং মোস্তাফিজুর রহমান মানিকের ‘ডার্ক ওয়ার্ল্ড’ ছবিটিও ঈদুল আজহায় মুক্তির কথা শোনা যাচ্ছে।